বিশেষ

এক যুগের সংশয়ের অবসান ঘটানো আর্টসেল এর “সংশয়”!

আর্টসেল সংশয় নিয়ন আলোয় neonaloy

বিংশ শতাব্দীর ঠিক শেষে, নব্বইয়ের দশকের ছেলেপেলেদের একটা আবেগের জন্ম হয়।

২০০২ সালে তাদের “আকাশ বদলে যায় অন্য আকাশে”, তারপর ২০০৬-এ তাদের সময়গুলো হয়ে যায় “ধূসর সময়“। এর মাঝে একবার রক ৩০৩ এলবামের দ্বিতীয় গানটায় কাণ্ডারিদের হুঁশিয়ার করে গিয়েছিল খুবই গ্রুভি একটা বেইজলাইন আর প্রগ্রেসিভ ড্রামস, এবং ২০১৬-তে অবিমৃষ্যতার গল্প। এরপর থেকে শুধুই অনিশ্চিত অপেক্ষার পালা…

বাংলাদেশি রক মিউজিক ফ্যানদের মধ্যে একটা কথা প্রচলিত, টুল (আমেরিকান রক ব্যান্ড) আর আর্টসেল এর ফ্যানদের কখনও অপেক্ষার ভয় দেখানো যায়না।

আর্টসেল সংশয় নিয়ন_আলোয়_Neon_Aloy

কাকতালীয়ভাবে দুটো ব্যান্ডেরই শেষ এলবাম এসেছিল ২০০৬ সালে। তবুও ভক্তরা হাল ছাড়েননি। ২০১৭ সালে এরশাদ জামান ব্যাক্তিগত কারণে আর্টসেল ছেড়ে দেয়ার পর ভক্তকুল সংশয়ে পড়ে যায় আদৌ কি তারা পাবে প্রিয় ব্যান্ডের তৃতীয় এলবাম?
এরপর একে একে বছর, তারপর এক যুগ পেরিয়ে গেছে, তৃতীয় এলবামটা “অতৃতীয়” ই থেকে গেছে।

অপেক্ষার পালা হয়ত শেষ হতে যাচ্ছে বাংলাদেশি রক ব্যান্ড আর্টসেলের ভক্তদের। “সংশয়” মুক্তি দিয়ে সব সংশয় এর অবসান ঘটিয়েছে ব্যান্ডটি। গত ৭ মার্চ আর্মি স্টেডিয়ামে অনুষ্ঠিত ‘জয় বাংলা কনসার্ট ২০১৯’ এর মঞ্চে আনুষ্ঠানিক ঘোষণার মাধ্যমে ভক্তদের এই সুখবর দেন ব্যান্ড মেম্বাররা।

ইতিমধ্যে দেশের মিউজিশিয়ান কমিউনিটির সাধুবাদ এবং শুভকামনা কুড়াচ্ছে আর্টসেল এর এই নতুন গান।

খুবই অবাক করা ব্যাপার হলেও ঠিক একই দিনে টুল ব্যান্ডের মেম্বারদের একসাথে স্টুডিওতে একটা ছবি পোস্ট হয় তাদের অফিসিয়াল পেইজ থেকে।

যাহোক, সংশয়ে ফেরত যাই । ‘গান’ অ্যাপে শুনতে পাবেন সিঙ্গেলটি, আপাতত শুধু এই প্ল্যাটফর্মেই পাওয়া যাচ্ছে ট্র্যাকটি।

আর্টসেল সংশয় নিয়ন_আলোয়_Neon_Aloy

“গান” অ্যাপ ইন্সটল করে এখনই হাই-কোয়ালিটি অডিওতে শুনে নিন আর্টসেল এর সংশয়!

যারা হার্ডকোর মেগাডেথ ফ্যান তাদের জন্য একটু ভ্রু কুঁচকানোর সুযোগ আছে, তবে “কৃত্রিম মানুষ” এর একটু ছোঁয়াও আছে গানটায় ,যা ভক্তদের ফিরিয়ে নেবে পুরানো আর্টসেলে।

পুরো গানটা জুড়ে একজন মানুষের অবচেতন মনের যে ভয় – ভীতি তাকেই একটু পরাবাস্তবভাবে ফুটিয়ে তোলা হয়েছে।

“মানসিক দ্বন্দ্বের অস্থির অনুনয়
কড়া নেড়ে মিলিয়ে যায়, নীলাভ অসারতায়।
আমি এখন জেগে উঠি ভরসাহীন অসহায়
আমার দুর্বলতা অন্ধকার উপাসনালয়।”

একটু ক্লান্তির আভাসও যেন পাওয়া যায় লিরিক্সেঃ

“অনুগ্রহ আমি চাইনি আমার পরাজয়ীর বেশে
আমি কোন যন্ত্রণা লাঘবের যন্ত্রণা হতে চাইনি অবশেষে”

সবশেষে একটু বিনয়, অতৃতীয় উপস্থিতির কাছে একটু অসহায় আত্মসমর্পনঃ

“আমি খুঁজি ঈশ্বরের সেই ছায়া , যে ছায়ায় জন্ম আমার।
আমি তোমার মাঝেই খুঁজি তাকে অবনত নতজানুতায়”

সেই পুরনো সাজু ভাইয়ের অতিমানবীয় ড্রামিং। যারা আর্টসেলের হেভি ট্র্যাকগুলো একটু পছন্দ করেন, রাহুর গ্রাসের পরে তাদের জন্য সংশয় একটা অবশ অনুভূতি, গানের তালে মাথা ঝাঁকানোর একটা নতুন সুযোগ। প্রগ্রেসিভ রক ব্যান্ড আর্টসেলের ক্ষুরধার ড্রামিং আর লিংকন ডি কস্টা’র রীফ এর পরাক্রম যে ২০ বছরে একটুও কমেনি তার প্রমাণ “সংশয়” ।

দু-তিন মাসের মধ্যেই ব্যান্ডে নিজের স্থান পাকাপোক্ত প্রমাণ করে ফেললেন কাজি ফয়সাল আহমেদ, যিনি নিজে মেটাল মেইজ এর মত ব্যান্ডের স্রষ্টা এবং আর্ক, ক্রিপটিক ফেইটের মত অসংখ্য ব্যান্ডের দুঃসময়ের সঙ্গী ।

আর্টসেল সংশয় নিয়ন_আলোয়_Neon_Aloy

গানটার প্রায় দেড় মিনিটের সোলোতে, শ্রেডিং আর গীটার লিক এর চমৎকার মিশ্রণ মনে করিয়ে দেয় মার্টি ফ্রিডম্যানের কথা।

পুরো গানজুড়ে সেজান ভাই এর বেইজলাইন খুব যত্ন করে আগলে রাখে গানটাকে। ঠিক সেই চিলেকোঠার সেপাই সেজান ভাই, যার বেইজলাইন শুনলে চোখের সামনে যেন দৃশ্যমান হয়ে যায় পাথর বাগান কিংবা অনিকেত প্রান্তর

সবশেষে “আমার জয় তোমার পরাজয় নয়”, গানের এরকম একটা সমাপ্তি আমাদেরকে একটু আপোষ, পুরনো বন্ধুকে ফিরে পাওয়ার একটু আকুলতার চিহ্ন দেখায়। হয়ত অসম্ভব, কিন্তু প্রায় ১৪ বছর পর পেতে যাওয়া এলবামটা আর্টসেল ভক্তদের শেখায় অসম্ভব বলতে কিছু নেই, হয়ত হবে ভক্তদের পরম আকাঙ্ক্ষিত সেই পুনর্মিলনী হয়ত হবে।

[পাইরেসি’কে না বলুন। আর্টসেলের “সংশয়” ট্র্যাকটি গান অ্যাপ ছাড়া ইউটিউব কিংবা ফেসবুক অন্য কোন প্ল্যাটফর্মে আপলোড করা হয়নি। বৈধভাবে শুধুমাত্র গান অ্যাপেই উপভোগ করুন, বৈধ উপায়ে গান উপভোগ করে শিল্পীদের পাশে থাকুন]

লেখকঃ তারমিম হক শুভ

আরো পড়ুনঃ ভাইব, এবং আমাদের নস্টালজিয়া!

Most Popular

To Top