নাগরিক কথা

রাণীর নাতির বিয়ে আজ

হ্যারি মেগান বিয়ে নিয়ন আলোয় neonaloy

রাণীর নাতির বিয়ে আজ। সেই বিয়ে নিয়ে বৃটেন বাসীর চেয়ে বাংলাদেশে থাকা বাংলাদেশীরা দ্বিগুণ উৎসাহী। অনেকের নিজের বিয়েতেও মনে হয় এমন উৎসাহী ছিলেন না বা এখনো নেই। অবশ্য বাঙালী চিরদিনই নিজের বিয়ের চাইতে অন্যের বিয়ে নিয়ে বেশী উৎসাহী। আমাদের উপমহাদেশে পৈত্রিক আর মাতৃক সুত্রে পাওয়া অভ্যাসগুলোর মধ্যে এটা একটা!

যাইহোক, রাজা-রানী-রাজকুমার-রাজকুমারীদের বিয়েতে উৎসাহী থাকতে হয়। যেনতেন উৎসাহী থাকলে কাজ হয় না, এদের বিয়েতে থাকতে হবে টানটান উত্তেজনায় উৎসাহী হয়ে।

আর দুই দেশেরই নাগরিক হিসেবে আমিও স্বাভাবিকের চেয়ে প্রায় চারগুণ উত্তেজনা নিয়ে উত্তেজিত হয়ে এই বিয়ের অপেক্ষায় আছি।

সব কিছুর আপডেট খবর নিচ্ছি ক্ষণেক্ষণে। এই যেমন বরের সাথে বেষ্টম্যান হয়ে কে হাঁটবে-পাশে থাকবে, ফুল ছোড়াছুঁড়িতে কোন কোন বাচ্চারা থাকবে, বরের চৌদ্দগুস্টি কোথায় বসবে, সবার উৎসাহে ঘি ঢালতে কে কে বক্তৃতা দিবে, কে কন্যা তুলে দিবে, কন্যার সাথে কে কে থাকার নমিনেশন পাবে আর কে কে প্রাথমিক রাউন্ডে বাদ গিয়েছে, বিশ্বকাপের মূল পর্বের মতো তাদের আগের প্র‍্যাক্টিসগুলো ঠিকঠাক মতো হচ্ছে কিনা- সব বিষয়েই উত্তেজিত হয়ে খোঁজখবর রাখি।

এই খোঁজখবর রাখা থেকে বাদ যায় না খাওয়াদাওয়া আর বিনোদন পর্বও।

কে কখন এই উপলক্ষে লাঞ্চ-চা-বিলাতি শরাব খাওয়ার আয়োজন করেছে, রান্নাঘরের প্রস্তুতি কেমন চলছে, গান বাজনা করে আমন্ত্রিত-বিনা আমন্ত্রিত আর আমাদের মতো দুনিয়াজোড়া উচ্ছিষ্টদের বিনোদিত করবে তার খোঁজও বাদ দেই না।

কিন্তু তখনি বুকটা হু-হু-হু-হু করে উঠে, কেমন একটা হাহাকার ছড়িয়ে পড়ে পুরো শরীর জুড়ে। ইচ্ছে করে ক্লান্ত-অবসন্ন দর্শকের মতো এগুলো দেখার চেয়ে অবসরে চলে যাই। নিজের ভিতরে কান্না গুমরে গুমরে উঠে, ইচ্ছে করে বলি –

“ওরে হারুনরে, এ তুই কি করলি? এ তুই কি করলি রে হারু, ভাই আমার?!?”

এই যুগের ছেলে হয়ে, কালের এমন যুগান্তকারী ক্ষণে বিয়ে করছিস অথচ তোর বিষম উদ্রেককারী ফ্যান কেকা আপার নুডুলসের একটা আইটেম তোর বিয়েতে তুই রাখলি না! কেমনে পারলি তুই এটা ভাই?

আর আমাদের স্যারকে ছাড়া তুই কিভাবে তোর বিয়ের গানের অনুষ্ঠান করতে পারলি, অন্তত স্যারের বানানো একটা মিউজিক ভিডিও তো চালানোর আয়োজন করতে পারতি!!

ফ্যান হিসাবে না হোক, অন্তত কমনওয়েলথ এর স্টার হিসাবে তো এই দুইজনকে প্রমোট করতে পারতি রে ভাই, বিশ্ববাসী দেখতো বাংলাদেশ কি জিনিষ লুকিয়ে রেখেছে নিজের গর্ভে!!!

নিজের বিয়েটা বিশ্বের দরবারে আরো হাইলাইট করার সুযোগ এভাবে হারালি রে পাগলা!!

আফসোস, হায় আফসোস……

তাও তোদের বিয়েতে আমাদের বাংলাদেশীদের তরফ থেকে রইলো নুডুলসের চটকানো ভর্তার আহাহাহাহা সমৃদ্ধ একরাশ শুভেচ্ছা…..

বি:দ্র: হ্যারীর বাংলাদেশী নাম তো হারুন ই হওয়ার কথা নাকি!!

Most Popular

To Top