ফ্লাডলাইট

ডিসেম্বর মাসেই চার দিনের টেস্ট!

ডিসেম্বর মাসেই চার দিনের টেস্ট! Neon Aloy

প্রায় দুই দশক ধরে সাবেক ক্রিকেটার এবং ক্রিকেট প্রশাসকদের অনেকেই প্রস্তাব রেখেছেন টেস্ট ম্যাচ যাতে চার দিনের করা হয়। বর্তমান যুগে টেস্ট ক্রিকেট আর আগের মতো ধীর গতিতে খেলা হয়না বরং টি টুয়েন্টির এই যুগে অসংখ্য টেস্টে চার দিনের ভেতরই ফলাফল হয়ে যায়।

এই চিন্তা মাথায় রেখেই এই বছর প্রচলিত বক্সিং ডে টেস্টের (২৬ ডিসেম্বর যে টেস্ট শুরু হয়) বদলে জিম্বাবুয়ের সাথে চার দিনের ডে-নাইট ম্যাচ খেলবে সাউথ আফ্রিকা। পোর্ট এলিজাবেথে অনুষ্ঠিত হবে এই ম্যাচ। চার দিনের এই ম্যাচকে টেস্ট ম্যাচ হিসেবে অফিশিয়াল স্ট্যাটাস দেয়ার জন্য এরই ভেতর আইসিসির কাছে আবেদন করেছে ক্রিকেট সাউথ আফ্রিকা।

ক্রিকেট সাউথ আফ্রিকার একজন মুখপাত্র ক্রিকইনফোকে জানিয়েছেন অক্টোবর মাসে আইসিসির অকল্যান্ডের সভাতেই বিষয়টি অনুমোদন পাবার আশা করছেন তারা। আইসিসির কাছে দেয়া প্রস্তাবনায় ক্রিকেট সাউথ আফ্রিকা লিখেছে চার দিনের টেস্ট ম্যাচ যদি অনুমোদন করা হয় তাহলে সেটা বাধ্যতামূলক না করে বরং দুই মেম্বার বোর্ডের সমঝোতার উপর রাখা যেতে পারে। দুই দেশ রাজি হলে কেবল তখনই চার দিনের টেস্ট হতে পারে। এছাড়া নবাগত দেশ যেমন আফগানিস্তান-আয়ারল্যান্ডের ভেতর টেস্ট চার দিনের হতে পারে। অথবা শীর্ষ দেশগুলা যখন নীচের সারির দলের সাথে খেলে থাকে।

সাম্প্রতিক সময়ে উপমহাদেশে অনুষ্ঠিত একাধিক টেস্ট চার দিনেই ফলাফল দেখেছে। এছাড়া ক্রিকেট খেলুড়ে সব দেশেই প্রথম শ্রেনীর ক্রিকেট চার দিনের হয়ে থাকে। পাশাপাশি “এ” দল এবং যুবদলের “টেস্ট” ম্যাচগুলাও চারদিনের হয়। কাউন্টি ক্রিকেট, শেফিল্ড শিল্ড বা রঞ্জি ট্রফির ম্যাচগুলাও চারদিনের হয়। এইসব ম্যাচ নিয়মিতই ফলাফল দেখে থাকে এবং শীর্ষ প্লেয়াররা এসব ম্যাচে খেলে থাকে ফলে চারদিনের টেস্টে মানিয়ে নিতে প্লেয়ারদের সমস্যা হবেনা বলে মনেকরে ক্রিকেট সাউথ আফ্রিকা।

চার দিনের টেস্টের মূল উদ্দেশ্য টেস্ট ক্রিকেটকে গতিশীল করে আরো জনপ্রিয় করে তোলা এবং সময় বাঁচিয়ে যেকোন সিরিজে অন্য ফরম্যাটের ম্যাচের সংখ্যা বাড়ানো।

আইসিসির আনুমোদন পেলে সাউথ আফ্রিকা এবং জিম্বাবুয়ে প্রথম চারদিনের টেস্ট খেলে ইতিহাসের অংশ হয়ে যাবে।

এর আগে ইতিহাসে একবারই পাঁচ দিন নয় এরকম অফিশিয়াল টেস্ট হয়েছিলো। ২০০৫ সালের ১৪ অক্টোবর সিডনিতে তৎকালীন সেরা দল অস্ট্রেলিয়া এবং বিশ্ব একাদশের ভেতর ৬ দিনের অফিশিয়াল টেস্ট ম্যাচ হয়েছিলো।

Most Popular

To Top